ভক্ত আশেকের মিলনমেলা গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারীর ওরশ ২৩ জানুয়ারি

    0
    2

    Tipuরাউজানটাইমস ২৪ ডেস্ক :- উপমহাদেশের প্রখ্যাত অলি-এ-কামেল, মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফে অধ্যাত্ম শরাফতের প্রতিষ্ঠাতা, বাংলার জমিনে মাইজভাণ্ডারী তরিকার মহান প্রবর্তক হযরত গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারী মওলানা শাহসুফি সৈয়দ আহমদ উল্লাহ্ (ক.) এর ১১০তম বার্ষিক ওরশ মোবারক তিন দিনব্যাপী আগামী ৮ মাঘ থেকে ১০ মাঘ প্রধান দিবস ১০ মাঘ ২৩ জানুয়ারি শনিবার মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফে মহাসমারোহে অনুষ্ঠিত হবে। দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলসহ পার্শ্ববর্তী রাষ্ট্রসমূহ ভারত, পাকিস্তান, বার্মা, নেপাল, শ্রীলংকা হতে এমনকি এশিয়া ও ইউরোপ মহাদেশের রাষ্ট্রসমূহ থেকে বিপুলসংখ্যক ভক্ত জায়েরীন এই ওরশ অনুষ্ঠানে যোগদান করবেন। গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারীর অনুষ্ঠান ও প্রতিষ্ঠানাদি পরিচালনা ও নিয়ন্ত্রণের জন্য অছি-এ-গাউসুলআজম মওলানা শাহসুফি সৈয়দ দেলাওর হোসাইন মাইজভাণ্ডারী কর্তৃক রেজিস্ট্রিকৃত অছিয়তনামা মোতাবেক সম্মিলিতভাবে দরবার পরিচালনায় দায়িত্বে নিয়োজিত মোন্তাজেম, জিম্মাদার, সাজ্জাদানশীন আওলাদ আলহাজ্ব শাহসুফি ডা. সৈয়দ দিদারুল হক মাইজভাণ্ডারী, আলহাজ্ব শাহসুফি সৈয়দ সহিদুল হক মাইজভাণ্ডারী ও আলহাজ্ব শাহসুফি সৈয়দ মুনিরুল হক মাইজভাণ্ডারী (র.) এর শাহাজাদাগণের সমন্বিত ব্যবস্থাপনায় এই ওরশ আয়োজনের সকল ব্যবস্থা ইতোমধ্যে সুসম্পন্ন করা হয়েছে। ২২ জানুয়ারি সকাল দশটায় কোরআনখানী, খতমে গাউছিয়া আদায়ের মাধ্যমে পবিত্র ওরশ শরীফের কর্মসূচি আনুষ্ঠানিকভাবে সূচনা করা হবে। ঐদিন বিকাল ৩টায় রওজা-পাকে গিলাফ চড়ানো ও গোসল শরীফ অনুষ্ঠানের কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ১০ মাঘ (২৩ জানুয়ারি) জুমার নামায আদায়সহ বা’দ এশা বয়ানে শানে মোস্তফা (দ.) গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারী মাহফিলে ওলামায়ে কেরামগণ শানে বেলায়ত ও গাউসুলআজমের তরিকত বিষয়ে বক্তব্য উপস্থাপন করবেন এবং মাহফিল শেষে রাত ১১টায় হযরতের দোয়ার মেহরাবে অছি-এ-গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারীর নির্দেশিত পন্থায় মিলাদ ও ওরশ ফাতেহাখানীর মুনাজাতের মাধ্যমে গাউছিয়া আহমদিয়া মঞ্জিলের সম্মিলিত আওলাদদের ব্যবস্থাপনায় এই মহান ওরশ শরীফের কার্যক্রম আঞ্জামের সকল প্রস্তুতি ইতোমধ্যে গ্রহণ করা হয়েছে। ওরশ শরীফের  শান্তি-শৃংখলা বজায়, আশেক ভক্তগণের যাতায়াত ও ইবাদতবন্দেগী, হাদিয়া, চলাচল নির্বিঘœ করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি বিশেষভাবে অনুরোধ করা হয়েছে। ওয়াক্তিয়া নামাযের সময়ে এবং শনিবার বা’দ এশা বয়ানে শানে মোস্তফা (দ.) ও গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারী মাহফিল, মিলাদ ও মুনাজাত চলাকালীন সময়ে দরবার শরীফ এলাকায় সকল ধরনের বাদ্য-বাজনা, মাইক্রোফোন, অডিও, ভিডিও ফিল্ম প্রদর্শন থেকে সকলকে বিরত থাকার জন্য ব্যবস্থাপনা কর্তৃপরে প থেকে বিশেষভাবে সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুরোধ জানানো হয়েছে। রাত এগারটায় মিলাদে নববী তাওয়াল্লোদে গাউছিয়া পাঠ, দেশ-জাতির মঙ্গলসহ ওরশ মোবারকে শরীক হওয়া সকল ভক্ত জায়েরীনদের কল্যাণ কামনায় রাত সাড়ে এগারটায় মুনাজাতের পর রাত ১২টায় নেয়াজ তবারুক বিতরণের মাধ্যমে এই মহান ওরশ মোবারকের আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম সমাপ্ত হবে। গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারী (ক.) এর এ মহান ওরশ শরীফে শরীক হবার জন্য এবং ওরশ শরীফ সুপারভিশন কমিটি ও ফটিকছড়ি উপজেলা প্রশাসনের সঙ্গে বিগত ০৬/০১/২০১৬ইং সমন্বয় বৈঠকে গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ওরশ শরীফের কার্যক্রম পরিকল্পনা মোতাবেক সুষ্ঠুভাবে সুসম্পন্ন করার ল্েয গাউছিয়া আহমদিয়া মঞ্জিলের জিম্মাদার, আওলাদগণের পে সদরুল মোন্তাজেমীন, সাজ্জাদানশীনে দরবারে গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারী আলহাজ্ব শাহসুফি ডা. সৈয়দ দিদারুল হক মাইজভাণ্ডারী জাতি, ধর্ম, বর্ণ, নির্বিশেষে সকলকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here