মিটারছাড়াই চলছে অধিকাংশ (সি.এস.জি) ট্যাক্সি, দেড়হাজার মামলা

    0
    1

    রাউজানটাইমস ২৪ ডেস্ক :-

    altaf-16-607x525দুই দফা সময় বৃদ্ধি ও মন্ত্রীর কড়া হুঁশিয়ারির পরও নগরীতে গতকাল অধিকাংশ সিএনজি ট্যাক্সি (অটোরিকশা) চলেছে মিটারছাড়া। নির্দেশ অমান্য করে রাস্তায় ট্যাক্সি নামানোর কারণে মিটার কার্যকর নিশ্চিত করতে মাঠে নামা অভিযান দল প্রথমদিনেই দেড় হাজার ট্যাক্সির বিরুদ্ধে মামলা করেছে। অবশ্য মিটার সংযোজনের আবেদনকারীদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা না নিয়ে তিনদিনের জন্য ছাড় দেয়া হচ্ছে।
    সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের রবিবার বিকেলে চিটাগাং চেম্বারের শতবর্ষপূর্তি উৎসব এবং ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার উদ্বোধন উপলক্ষে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে গতকাল সোমবার থেকে চট্টগ্রামে মিটারছাড়া সিএনজি ট্যাক্সি চলাচল করতে পারবে না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছিলেন। এরআগে সরকার সিএনজি ট্যাক্সি মিটারে চালানোর সিদ্ধান্ত দু’দফা বাড়ানোর পরও গতকাল নগরীর চিত্র ছিল হতাশাজনক। বেশিরভাগ ট্যাক্সি চলাচল করেছে মিটারছাড়া। আবার মিটার লাগানো ট্যাক্সি চালকদের মিটারের পরিবর্তে দরদাম করে ভাড়া নির্ধারণেই আগ্রহ ছিল বেশি। কেউ কেউ বাড়তি দেয়ার আবদার করে মিটারে ট্যাক্সি চালিয়েছেন।
    নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (প্রশাসন, অর্থ ও ট্রাফিক) একেএম শহীদুর রহমান বলেন, অভিযানে গিয়ে আমরা অধিকাংশ ট্যাক্সিতে মিটার দেখিনি। মিটারে ট্যাক্সি চলাচলে বাধ্য করতে পাঁচটি টিম গঠন করা হয়েছে। প্রত্যেক টিমে একজন সার্জেন্ট অথবা একজন ট্রাফিক পরিদর্শকের নেতৃত্বে আটজন করে সদস্য রাখা হয়েছে।
    নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (ট্রাফিক-উত্তর) মাসুদ-উল-হাসান বলেন, এসএসসি পরীক্ষার্থীদের দুর্ভোগের কথা চিন্তা করে সকালে অভিযান শুরু করা হয়নি। দুপুর ২টা থেকে নগরীর নিউমার্কেট এলাকা থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে মিটারবিহীন সিএনজি ট্যাক্সির বিরুদ্ধে অভিযান শুরু হয়। দুপুর দেড়টা পর্যন্ত এক হাজার ট্যাক্সির বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। তবে, রাত সোয়া ৯টার দিকে যোগাযোগ করা হলে ট্রাফিক পুলিশের সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, প্রায় দেড় হাজার সিএনজি ট্যাক্সির বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।
    মাসুদ-উল-হাসান আরো জানান, যেসব চালক মিটারছাড়া সিএনজি ট্যাক্সি চালাবে তাদের প্রাথমিকভাবে অর্থদ- দেয়া হচ্ছে। এরপর থেকে বিধি মোতাবেক শাস্তি নিশ্চিত করা হবে। তবে সোমবার থেকে তিন দিন অর্থাৎ বুধবার পর্যন্ত আবেদনপত্র দেখালে মামলা দেওয়া হবে না। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বিদ্যমান আইনে মিটারবিহীন ট্যাক্সি চালকদের ১৪শ টাকা অথবা তদূর্ধ্ব অর্থদ-ের বিধান আছে।
    এদিকে, প্রাসঙ্গিক এক প্রশ্নের জবাবে ‘অর্ধেকেরও বেশি ট্যাক্সিতে মিটার লেগে গেছে’ উল্লেখ করে ডিসি ট্রাফিক মাসুল উল হাসান বলেন, অভিযানের কারণে গতকাল দুপুরের পর থেকে ট্যাক্সিতে মিটার লাগানোর তোড়জোড় শুরু হয়েছে। মিটার সংযোজন ও ক্যালিব্রেশন করতে জড়ো হওয়া চালকদের ভিড় সামলাতে নিবন্ধনকৃত কোম্পানিগুলো রীতিমতো হিমসিম খাচ্ছে।
    বৈধ ট্যাক্সি মালিক- চালকদের অভিযোগ, শুধুমাত্র বৈধ ট্যাক্সির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। কিন্তু রেজিস্ট্রেশনবিহীন ট্যাক্সির বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না।
    উল্লেখ্য, ঢাকা ও চট্টগ্রামে একসঙ্গে মিটারে ট্যাক্সি চলাচল শুরু হওয়ার কথা থাকলেও চট্টগ্রামে মিটার সংযোজন বা মেরামতের জন্য সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় দুই দফায় তিন মাস সময় বাড়িয়েছে। সর্বশেষ গতকাল সোমবার থেকে মিটারে ট্যাক্সি চলাচলের বিষয়ে অনড় অবস্থান নেয় পুলিশ।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here