শহীদ শেখ কামাল আবাহনী প্রতিষ্ঠা করে ক্রীড়ার ইতিহাসে অমরত্ব লাভ করেছেন : মেয়র আ.জ.ম নাছির

    0
    12

    রাউজানটাইমস ২৪ ডেস্ক :-

    ক্রীড়াঙ্গণের অত্যন্ত জনপ্রিয় সংগঠন চট্টগ্রাম আবাহনীর ৩৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন উপলে চট্টগ্রাম আবাহনী মিলন মেলা পরিষদের উদ্যোগে শহীদ শেখ কামাল স্মৃতি চিত্রাংকন প্রতিযোগীতা, আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখতে গিয়ে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ.জ.ম নাছির উদ্দিন বলেন, babu-1আবাহনীর মতো জনপ্রিয় ক্রীড়া সংগঠন গঠন করে ক্রীড়াঙ্গণের ইতিহাসে অমরত্ব লাভ করেছেন। মহান স্বাধীনতা লাভের পর দেশের ক্রীড়াঙ্গণ যখন ভঙ্গুর অবস্থায় চলছে ঠিক তখন দূরদর্শী চিন্তা ভাবনা নিয়ে আবাহনীর মতো আধুনিক ক্রীড়া সংগঠন গঠন করে ক্রীড়াঙ্গণে এক বিপ্লব সৃষ্টি করেন। পরবর্তীতে তাঁর হাতে গড়া দল আবাহনী লিমিটেড শুধু বাংলাদেশেই নয় উপমহাদেশের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ও সর্বাধিক জনপ্রিয় সংগঠনে পরিণত হয়েছে।
    জেলা শিল্পকলা একাডেমি উন্মুক্ত মঞ্চে আজ ১০ অক্টোবর সন্ধ্যা সাড়ে ৬ ঘটিকায় চট্টগ্রাম আবাহনীর প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক লায়ন আলহাজ্ব দিদারুল আলম চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মোঃ সামসুল আরেফিন, বীর চট্টগ্রাম মঞ্চের সম্পাদক আলহাজ্ব ওমর ফারুক।
    এর আগে বিকাল ৫ ঘটিকায় শেখ কামাল স্মৃতি চিত্রাংকন প্রতিযোগীতা উদ্বোধন করেন আবাহনী সমর্থক গোষ্ঠী কেন্দ্রীয কমিটির সহ-সভাপতি ও আবাহনী মিলন মেলা পরিষদের মহাসচিব মফিজুর রহমান। এছাড়াও ২১নং জামাল খান ওয়ার্ড কাউন্সিলর শৈবাল দাশ সুমন উপস্থিত ছিলেন। আবাহনী সমর্থক গোষ্ঠী চট্টগ্রাম জেলার সভাপতি সাহাব উদ্দীন হাসান বাবুর পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন আবাহনী সমর্থক গোষ্ঠীর নেতা কামাল আহমেদ, নাছির উদ্দিন মাহমুদ, আশরাফ উদ্দিন ইভান, রাশেদ ইবনে ফরিদ চৌধুরী, আলী ওসমান রাজু, জাহাঙ্গির হোসেন, মোহাম্মদ ইউসুফ, নাসির উল্লাহ, সুফিউর রহমান টিপু, মীর হোসেন, সোহেল আহমদ, তসলিম উদ্দিন, আজাদ চৌধুরী, আবু জাবেদ, নাজিম উদ্দিন, সোহাগ খান, তৌসিফ, রুবেল প্রমুখ।
    উল্লেখ্য ১৯৮০ সালের ১০ অক্টোবর আলহাজ্ব দিদারুল আলম চৌধুরীর আহবানে চট্টগ্রাম আবাহনী গঠন কল্পে প্রথম সভা অনুষ্ঠিত হয়। পরবর্তীতে সকলের প্রাণপণ সহযোগীতায় আজ চট্টগ্রাম আবাহনী দেশ সেরা একটি সংগঠনে রুপান্তরিত হয়েছে। শহীদ শেখ কামাল স্মৃতি চিত্রাংকন প্রতিযোগীতায় বিভিন্ন স্কুলের প্রায় ৫ শতাধিক প্রতিযোগী ৩টি বিভাগে অংশগ্রহণ করে। পরবর্তীতে প্রধান অতিথি বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার ও সার্টিফিকেট বিতরণ করেন। অনুষ্ঠানের
    প্রধান বক্তা চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেডের মহাসচিব আলহাজ্ব সামশুল হক চৌধুরী এম.পি পটিয়ায় বিভিন্ন পূজা মন্ডপ পরিদর্শনে ব্যস্ত থাকায় আসতে না পারায় উনি দুঃখ প্রকাশের সাথে সবাইকে ধন্যবাদ প্রকাশ করেন।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here