সময় এখন বিরাট কোহলি’র

    0
    6

     

    নেজাম উদ্দিন রানা :
    ওয়ানডে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সেঞ্চুরির তালিকায় তাহলে একদিন কি স্বদেশী কিংবদন্তি শচীন রমেশ টেন্ডুলকারকে পেছনে ফেলে দেবেন বিরাট কোহলি! যেভাবে দাপটের সাথে সিরিজ বাই সিরিজে রান উৎসবে মেতে উঠছেন হাল আমলের সেরাদের অন্যতম বিরাট কোহলি তাতে শচীনকে ছাপিয়ে যাওয়ার অপার সম্ভাবনা দেখতে পাচ্ছেন ক্রিকেট বোদ্ধারা। ২৯ অক্টোবর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে ক্যারিয়ারের ৩২তম সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে সেই সম্ভাবনাকে আরো জোরালো করে তোলেছেন কোহলি। সেই সাথে রেকর্ডের আরো একটি পাতা থেকে মুছে দিয়েছেন ভিলিয়ার্সের নাম। ১৯৪ ইনিংসে ব্যাট হাতে নেমে ওয়ানডে ক্রিকেটের দ্রুততম নয় হাজারী ক্লাবে নাম লেখালেন কোহলি। পূর্বের রেকর্ডটি ছিল দক্ষিণ আফ্রিকার ‘রান মেশিন’ এবি ডিভিলিয়াসের। ২০৫টি ইনিংস খেলে নয় হাজারী ক্লাবে নাম উঠিয়েছিলেন তিনি। শুধু নয় হাজার নয় ১৭৫ ইনিংসে দ্রুততম আট হাজার রানের ল্যান্ডমার্কে পা রেখেছিলেন কোহলি। তিন ম্যাচের সিরিজের প্রথম ম্যাচে ক্যারিয়ারের ২০০তম ওয়ানডে খেলার দিনেও ১২১ রানের ঝলমলে এক ইনিংস উপহার দেন বিরাট। তার সামনে এখন কেবল ৪৯ সেঞ্চুরির মালিক শচীন। সর্বকালের সর্বোচ্চ সেঞ্চুরির তালিকায় এরপরের নামগুলো গ্রেট ক্রিকেটারদের। ৩০টি সেঞ্চুরি নিয়ে তিনে রয়েছে সাবেক অজি দলপতি রিকি পন্টিং, ২৮ সেঞ্চুরি নিয়ে তালিকায় চার নম্বরে মাতারা হারিকেন সনাথ জয়সুরিয়া, বর্তমান সময়ের আরেক গ্রেট দক্ষিণ আফ্রিকার হাশিম আমলার সেঞ্চুরির সংখ্যা ২৬, তিনি আছেন পঞ্চম স্থানে। তারই স্বদেশী আরেক ব্যাটিং বিস্ময় এ বি ডি ভিলিয়ার্স ২৫ সেঞ্চুরি নিয়ে আছেন তালিকার ছয় নাম্বারে, সাতে রয়েছেন লঙ্কান কিংবদন্তি কুমার সাঙ্গাকারা। বর্তমান সময়ে খেলা ক্রিকেটারদের মধ্যে কেবল ভিলিয়ার্স আর আমলা কোহলির সাথে সেঞ্চুরি হাঁকানোর দৌঁড়ে থাকলেও বয়স এবং ফর্ম বিবেচনায় কোহলির চেয়ে অনেক পিছিয়ে দুই আফ্রিকান ব্যাটসম্যান। তার মানে, রঙ্গিন পোশাকের ক্রিকেটে সেঞ্চুরি,রানের দিক দিয়ে সবাইকে অতিক্রম করার মতো সামর্থ্য রয়েছে কোহলির। অথচ ক্রিকেট লিজেন্ড শচীনের অবসরের সময় যখন তার নামের পাশে শোভা পাচ্ছিল ৪৯ টি সেঞ্চুরি সে সময় অনেকেই ভেবেছিল তার এই রেকর্ডটি হয়ত স্পর্শ করতে পারবেনা কেউ। কিন্তু তারই যোগ্য উত্তরসূরি কোহলি দিন দিন যেভাবে ক্রিকেট মাঠে নিজেকে ছাড়িয়ে যাওয়ার মিশনে নেমেছেন তাতে ক্রিকেটের অনেক রেকর্ডের পাতা নতুন করে লেখার জন্য উদ্গ্রীব ক্রিকেট বোদ্ধারা।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here